ঢাকামঙ্গলবার , ৮ নভেম্বর ২০২২
  • অন্যান্য
আজকের সর্বশেষ সবখবর

সিটি নির্বাচন সামনে রেখে নিজ উদ্যাগে ব্যানার-ফেস্টুন সরাচ্ছে নির্বাচন প্রার্থীরা

রিয়াজুল হক সাগর, রংপুর |
নভেম্বর ৮, ২০২২ ৮:৪১ অপরাহ্ণ । ৩৮ জন
Link Copied!
একাত্তর পোস্ট অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

রিয়াজুল হক সাগর, রংপুর |

রংপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচনকে সামনে রেখে মেয়র ও কাউন্সিলর পদের সম্ভাব্য প্রার্থীদের শুরু করা আগাম প্রচারের রঙিন পোস্টার-ফেস্টুন খুলে ফেলতে শুরু করেছে। বেশ কয়েকজন প্রার্থী নিজ উদ্যোগে এসব পোস্টার-ফেস্টুন খুলে ফেলছেন। মঙ্গলবার (০৮ নভেম্বর) দুপুরে নগরীর শাপলা চত্বর মোড়ে জাতীয় পার্টির পোস্টার, ফেস্টুন খুলে ফেলতে দেখা গেছে। এছাড়াও নগরীর বিভিন্ন স্থানে প্রার্থীরা তাদের লাগানো ব্যানার-ফেস্টুন সরিয়ে ফেলা হচ্ছে। নির্বাচন অফিস জানায়, আচরণবিধি লঙ্ঘন হয়, এমন কিছু সহ্য করা হবে না। পোস্টার-ফেস্টুন খোলার জন্য প্রার্থীদের নোটিশ দেয়া হবে। পাশাপাশি চলবে ভ্রাম্যমাণ আদালতও। নির্বাচন অফিস সূত্রে জানা গেছে, নগরীর যেসব স্থানে ফেস্টুন, ব্যানার, বিলবোর্ড ও পোস্টার লাগানো হয়েছে, তা নিজ দায়িত্বে সরিয়ে নিতে সংশ্লিষ্ট সম্ভাব্য প্রার্থীদের আহ্বান জানানো হচ্ছে। নির্ধারিত সময়সীমার পর নগরীতে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হবে। নির্ধারিত সময়সীমার পর যাদের ব্যানার, পোস্টার, ফেস্টুন ও বিলবোর্ড পাওয়া যাবে, তাদের বিরুদ্ধে আইগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।
সিটি নির্বাচন আইনবিধি অনুযায়ী, প্রতীক বরাদ্দের আগে দলীয় ও স্বতন্ত্র প্রার্থীর এ ধরনের প্রচারের কোনো সুযোগ নেই। এ সময় নির্বাচন সংক্রান্ত দেয়াল লিখন, পোস্টার, বিলবোর্ড, ব্যানার, তোরণ ও গেইট তৈরি পুরোপুরি নিষিদ্ধ। দেয়াল লিখন ও পোস্টার লাগানো (নিয়ন্ত্রণ) আইন অনুযায়ী নির্ধারিত সময়সীমার মধ্যে পোস্টার, ফেস্টুন, বিলবোর্ড ও ব্যানার অপসারণ করা না হলে জরিমানা ও কারাদণ্ডের বিধান রয়েছে।

এদিকে আগামী ২৭ ডিসেম্বর রংপুর সিটি করপোরেশনের নির্বাচনের তারিখ ঘোষণা করে তফসিল প্রকাশ করা হয়েছে। নির্বাচনের প্রচারের জন্য ব্যবহৃত ফেস্টুন, ব্যানার ও বিলবোর্ডে রংপুর নগরীর বিভিন্ন অলি-গলি, বিদ্যুৎ ও টেলিফোনের খুঁটি এবং সরকারি-বেসরকারি স্থপনাগুলো ছেয়ে গিয়েছিল। ভ্রাম্যমাণ আদালতের ভয়ে প্রার্থীরা নিজ নিজ দায়িত্বে ব্যানার-ফেস্টুন খুলে নিতে শুরু করেছেন।
এব্যাপারে জাতীয় পার্টির মেয়র পদপ্রার্থী মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফা বলেন, আমি বরাবরই আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। ফেস্টুন ও বিলবোর্ড অপসারণের নির্দেশ দেয়া হয়েছে। ইতিমধ্যে সেগুলো অপসারণ করা হচ্ছে ।রংপুর জেলা নির্বাচন অফিসার ফরহাদ হোসেন বলেন,

error: Content is protected !!